আকাশ বার্তা
Next Prev

তৃনমুলে যোগ দিচ্ছেন শ্রাবন্তীর প্রাক্তন স্বামী রোশন? এই ছবি পোস্ট করতেই বাড়লো জল্পনা!

রাজনীতিতে আসছেন শ্রাবন্তীর প্রাক্তন স্বামী রোশন? তার পোস্ট করা ছবি নিয়ে জোড় জল্পনা!

আকাশ বার্তা অনলাইন ডেস্ক - বেশ কিছু মাস আগের কথা। শ্রাবন্তীকে বিয়ের মাধ্যমেই নেট দুনিয়ার চর্চায় চলে এসেছিলেন রোশন সিং। সেই সময়েই সোশ্যাল মিডিয়ায় বিশেষ পরিচিতি তার। এর পরে যদিও শ্রাবন্তীর সাথে সম্পর্কে ফাটল ধরেছে। ডিভোর্স না হলেও তারা যে যার মতো আলাদাই থাকেন। তার পর থেকেই বারংবার দেখা গেছে কখনো ইনস্টাগ্রামে তাদের নাম না করেই প্রতিক্রিয়া পাল্টা প্রতিক্রিয়া চলেছে। তবে সম্প্রতি জিম ট্রেনিং সেন্টার খুলেছেন শ্রাবন্তী। মনে করা হয় রোশনের সাথে পাল্লা দিতেই তার এই জিম। তবে এবার অন্য আরেক প্রসঙ্গেও একটি ছবির মাধ্যমে তাদের রেষারেষির সম্ভাবনা উঠে আসছে। 

আরো পড়ুন - যশ ও নুসরতের সম্পর্ক নিয়ে এবার মুখ খুললেন যশের প্রাক্তন স্ত্রী শ্বেতা
এক নজরে আজকের সমস্ত ব্রেকিং নিউজ

রোশনের ইনস্টাগ্রাম পোস্ট - সম্প্রতি নিজের ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে একটি ছবি পোস্ট করেছেন রোশন সিং। যেখানে তাকে দেখা যাচ্ছে তার পাশে হাসিমুখে দাঁড়িয়ে রয়েছেন তৃণমূল নেতা শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় এর ছেলে সায়নদেব চট্টোপাধ্যায়। আর তার পর থেকেই সকলের মনে প্রশ্ন জেগেছে এবার কি তবে রাজনীতির ময়দানে প্রবেশ করতে চলেছে রোশন সিং। প্রসঙ্গত বিজেপির হয়ে এবার ভোটে দাঁড়িয়েছিলেন শ্রাবন্তীও। সেই কারনেই রোশনের তৃণমূল যোগের সম্ভাবনা বলেই মনে করা হচ্ছে। তবে এবিষয়ে রোশন বা সায়নদেব দুজনেই অস্বীকার করেছেন।

আরো পড়ুন -  'আজও দেবশ্রীকে ভুলতে পারিনি!' অভিনেত্রীর সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে প্রকাশ্যে মুখ খুললেন অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তী!

সায়নদেবের মন্তব্য - এদিন সায়নদেবকে রোশনের তৃণমূল যোগ নিয়ে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি বলেন, "আমি দীর্ঘদিন ধরেই রোশনের জিমে ট্রেনিং করি। তবে দীর্ঘ দুবছর করোনা পরিস্থিতির কারনে জিমে আর যাওয়া হয়নি। তবে বর্তমানে পরিস্থিতিকে স্বাভাবিক হতে এবং নিজেকে ফিট রাখতে ফের জিমে যাওয়া শুরু করেছি। আর তখনই হটাৎ করে রোশনের সাথে দেখা হয়ে যায়। জিমের কর্ণধার হিসেবেই ওর সাথে আমার পরিচয়। তার পাশাপাশি আমরা দুজন খুব ভালো বন্ধু। আর দীর্ঘদিন বাদে বন্ধুর সাথে দেখা হলে ছবি তোলা যাবেনা ?"

এর পরেই তিনি খানিক বিরক্ত হয়েই বলেন রাজনৈতিক ব্যক্তিদের সাথে ছবি তোলা মানেই কি রাজনীতিতে যোগ এ ধারণা একেবারেই ভ্রান্ত। এর পরেই তিনি বলেন,"বনি, রুদ্রনীল দার সাথেও আমার সম্পর্ক খুবই ভালো। তবে রাজনৈতিক কারণে কি আমি তাদের সাথে বন্ধুত্ব অস্বীকার করবো? আমি বন্ধুদের সাথে দেখা হলে ছবিও তুলবো আর সোশ্যাল মাধ্যমেও দেব।"

আপনি কী এই নিউজগুলি পড়েছেন? পড়ুন আজকের বাছাই করা ব্রেকিং নিউজের আপডেট

রাজনীতি

তথ্য ও প্রযুক্তি

বিনোদন